বিজে২৪ডটকম:

করোনা ভাইরাস পরীক্ষার অনুমতি পেয়েছে নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (নোবিপ্রবি)। চাঁদপুর, নোয়াখালী ও লক্ষ্মীপুর এ তিন জেলার করোনা রোগীর নমুনা পরীক্ষা হবে এ বিশ্ববিদ্যালয়টিতে । তবে অনুমতি পেলেও পরীক্ষা শুরু করতে আরও এক সপ্তাহ সময় লাগবে বলে জানিয়েছে সংশ্লিষ্টরা।

ক্যাম্পাস সূত্রে বিবিসি জার্নাল-কে জানানো হয়, গত ২৬ এপ্রিল গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের স্বাস্থ্য পরিচালকের স্বাস্থ্য দফতর, চট্টগ্রাম বিভাগ একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেছে। চট্টগ্রাম বিভাগের স্বাস্থ্য পরিচালক ও করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণ ও মোকাবিলায় গঠিত বিভাগীয় কমিটির সদস্য সচিব ডা. হাসান কবীর শাহরিয়ার স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে বিষয়টি জানানো হয়।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, চট্টগ্রাম বিভাগে কোভিড-১৯ এর শনাক্তকরণ পরীক্ষা নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (নোবিপ্রবি) করা হবে। চাঁদপুর, নোয়াখালী ও লক্ষ্মীপুর জেলার করোনা রোগীর নমুনা পরীক্ষা নোবিপ্রবিতে করা যাবে এবং ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের পিসিআর টেস্ট চালু হওয়া সাপেক্ষে এই প্রজ্ঞাপন কার্যকর হবে।

এ বিষয়ে নোবিপ্রবির উপাচার্য অধ্যাপক ড. দিদার উল আলম বিবিসি জার্নাল টুয়েন্টিফোর ডটকম-কে বলেন, ‘একটি পিসিআর মেশিন মালেক উকিল মেডিকেল কলেজে পাঠানো হবে, আরেকটি পিসিআর মেশিন বিশ্ববিদ্যালয়ের অনুজীব বিজ্ঞান বিভাগে চালু হবে। অণুজীব বিজ্ঞান বিভাগের চেয়ারম্যান ড. ফিরোজ আহমেদ ও তার শিক্ষার্থীরা ল্যাবে পিসিআর মেশিন স্থাপন করার ব্যবস্থা করবে।’ এ বিষয়ে স্থানীয় প্রশাসনের কাছে সব ধরনের সহযোগিতা চেয়েছেন উপাচার্য।

অণুজীব বিজ্ঞান বিভাগের চেয়ারম্যান ড. ফিরোজ আহমেদ বলেন, ‘নোবিপ্রবির অণুজীব বিজ্ঞান বিভাগের ল্যাবে করোনা শনাক্তকরণ কার্যক্রম চালু হবে। এই ল্যাবে পিসিআর কার্যক্রম চালু করে প্রতিদিন ৯০টি নমুনা পরীক্ষা করা সম্ভব। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যেই করোনা শনাক্তকরণ কার্যক্রম শুরু করা হবে।’

নোয়াখালী,লক্ষ্মীপুর,ফেনী জেলার সমন্বয়ে গঠিত একটি অরাজনৈতিক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন।