নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলার চৌমুহনীর সমবায় মার্কেটের ইসলামিয়া সার্জিক্যালকে ৭০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে। ফেস মাস্কের প্যাকেটের গায়ে মূল্য লেখা না থাকা, অতিরিক্ত মূল্যে বিক্রি করা ও অননুমোদিত ওষুধ বিক্রির উদ্দেশ্যে সংরক্ষণ করার দায়ে এই জরিমনা করা হয়।

মঙ্গলবার (১০ মার্চ) ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ২০০৯ ও ড্রাগ আইন ১৯৪০ এর বিধান অনুযায়ী এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট মো. রোকনুজ্জামান খান এই জরিমানা করেন।

আদালত পরিচালনায় সহযোগিতা করেন ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তর নোয়াখালীর সহকারী পরিচালক মাসুদুজ্জামান খান ও জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর নোয়াখালীর সহকারী পরিচালক কাওছার আহমেদ।

মো. রোকনুজ্জামান খান বিবিসি জার্নাল টোয়েন্টিফোর ডটকম-কে বলেন, ইসলামিয়া সার্জিক্যালের সত্ত্বাধিকারী তিন ক্যাটাগরির ফেস মাস্ক বিক্রি করছিলেন। চায়না মাস্ক ১২০ টাকা করে, যার মূল্য ৪০ টাকা। এয়ার ফিল্টারিং মাস্ক ১৩০ টাকা করে, যার মূল্য ৪০ টাকা। কাপড়ের নরমাল মাস্ক ৬০ টাকা করে, যার মূল্য ১০টাকা।

এছাড়া ড্রাগ লাইসেন্স ব্যতীত ওষুধ বিক্রি ও আমদানি নিষিদ্ধ ওষুধ বিক্রির উদ্দেশ্যে সংরক্ষণ করায় চৌমুহনীর ফেয়ার সার্জিক্যালকে ড্রাগ আইন ১৯৪০ অনুযায়ী ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।